এমপি ওয়াজি উদ্দিন খানের দাফন সম্পন্ন

পাবনা ৩ (চাটমোহর-ভাঙ্গুড়া-ফরিদপুর) আসনের একাধিকবার নির্বাচিত সাবেক সংসদ সদস্য মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি, পাবনা জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও ওয়াজি উদ্দিন খানের দাফন সম্পন্ন হয়েছে।

শনিবার (১ ফেব্রুয়ারি) সকালে পাবনা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কার্যালয়ের সামনে এই মুক্তিযোদ্ধাকে গার্ড অফ অনার প্রদান করা হয়। এ সময় ওয়াজি উদ্দিন খানের মরদেহে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ, পুলিশ সুপার শেখ রফিকুল ইসলাম, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রেজাউল রহিম লাল।

পরে সকাল ১১টায় ওয়াজি উদ্দিন খানের মরদেহ তার নির্বাচনী এলাকা পাবনা ৩ এর চাটমোহর বালুচর মাঠে নেয়া হয়। সেখানে নামাজে জানাজায় স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা ছাড়াও চাটমোহর ভাঙ্গুড়া ফরিদপুরের হাজারো মানুষ অংশ নেন। এ সময় উপস্থিত জনতার উদ্দেশ্য ওয়াজি উত্তর খানের স্মৃতিচারণ করে বক্তব্য দেন, পাবনা-৩ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মোঃ মকবুল হোসেন, পাবনা ১ আসনের সংসদ সদস্য শামসুল হক টুকু, পাবনা ৫ সদর আসনের সংসদ সদস্য গোলাম ফারুক প্রিন্স, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রেজাউল রহিম লাল, বিএনপি চেয়ারপার্সনের বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আব্দুল হামিদ মাষ্টার, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এ্যাড, সাখোওয়াত হোসেন সাখো প্রমুখ।

পরে পাবনা জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে প্রখ্যাত এই শ্রমিক নেতার মরদেহ সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য রাখা হয়। এ সময় জেলা আওয়ামী লীগ, পাবনা চেম্বার অব কমার্স, পাবনায় কর্মরত সাংবাদিক পরিবার, পাবনা প্রেসকাব, ঐক্য ন্যাপ পাবনা জেলা কমিটি, জাসদ, মোটর শ্রমিক ইউনিয়ন সহ বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

পরে ওয়াজি উদ্দিন খানের মরদেহ দ্বিতীয় জানাজার জন্য পাবনা পুলিশ লাইন মাঠে নেয়া হয়। এ সময় বক্তারা ওয়াজি উদ্দিন খানের কর্মময় জীবনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে দলমত নির্বিশেষে পাবনার সকল শ্রেণিপেশার মানুষের অভিভাবক হিসেবে অভিহিত করেন। মরহুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন। দুপুর দুইটায় মাওলানা আব্দুল বাকেরের পরিচালনায় দ্বিতীয় জানাজা শেষে তাকে পাবনা সদর গোরস্থানে দাফন করা হয়।

উল্লেখ্য, পাবনার সদর উপজেলার দাপুনিয়া ইউনিয়নের ভাঁজপাড়া গ্রামে ১৯৩৬ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি জন্মগ্রহণ করেন ওয়াজি উদ্দিন খান। ভূট্টা আন্দোলন, গণঅভ্যূত্থান ও মহান মুক্তিযুদ্ধে তার ভূমিকা ছিল অনন্য। ১৯৭২ সালে তিনি পাবনা জেলা মোটর শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।

১৯৮০ সালে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি নির্বাচিত হয়ে এখনও পর্যন্ত উক্ত পদে দায়িত্ব পালন করছেন। দীর্ঘ ৫০ বছরে যতবার শ্রমিক ফেডারেশনের কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হয়েছে এই বর্ষিয়ান শ্রমিক নেতাকে সম্মান করে সভাপতি নির্বাচিত করেছেন শ্রমিক নেতারা।

পাবনা জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন দীর্ঘ ২৫ বছর। ১৯৮৬ এবং ১৯৯৬ সালে ওয়াজি উদ্দিন খান পাবনা-৩ (চাটমোহর, ভাঙ্গুড়া, ফরিদপুর) আসনে দুইবার জাতীয় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *