পাবনায় সড়ক দুর্ঘটনায় মাদরাসা সহ সুপারের করুণ মৃত্যু

নিজস্ব  প্রতিনিধি: পাবনায় সড়ক দুর্ঘটনায় আব্দুস সামাদ (৫০) নামে এক মাদরাসা সহ সুপারের করুণ মৃত্যু হয়েছে। ঘাতক ড্রাইভার পালিয়ে গেলেও ট্রাক আটক করে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে।
রবিবার (১৮ অক্টোবর ২০২০) দুপুর আড়াইটায় শহরের রাধানগর ডাকবাংলা মোড়ে এ ঘটনা ঘটে। সোমবার (১৯ অক্টোবর ২০২০) সকাল ১০ টায় আওরঙ্গাবাদ হাফিজিয়া মাদরাসা মাঠে জানাযা নামাজ শেষে কবরস্থানে দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে।
নিহত সুপার সদর উপজেলার ভাঁড়ারা ইউনিয়নের মহাদেবপুর এলাকার আব্দুল হামিদের ছেলে ও ভাঁড়ারা সালেহা রহিম দাখিল মাদরাসার সহ সুপার।
প্রত্যক্ষদর্শী লিটন শেখ জানান, আমি ডাক বাংলা মোড়ে দাড়িয়ে আছি এমন সময় এক মটর সাইকেল চালক রাস্তার বাইরে ছিটকে পরে যায়। তখন আমি দেখি পিছনে একটি ট্রাক তাকে ধাক্কা মেরে দ্রুত ট্রাক নিয়ে চলে যেতে বসছে। পরে আমি ট্রাককে থামিয়ে আহতকে উদ্ধার করে পাবনা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাই, অবস্থা গুরুতর হলে রাজশাহী মেডিকেল হাসপাতালে নেওয়ার পথে সন্ধার দিকে মৃত্যুবরণ করে।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, ২০০৪ সালে সালেহা রহিম দাখিল মাদরাসায় সহকারি শিক্ষক হিসেবে যোগদান করেন। পরে ২০১৪ সালে পদোন্নতি পেয়ে মাদরাসার সহ সুপারের দায়িত অর্পণ করা হয়। অত্যান্ত দক্ষতার সাথে মাদরাসার সকল কাজ করে প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার মান উন্নত করে গেছেন। সারা জীবন মানুষের সাথে সদা নম্রভদ্র ও মিষ্টভাষী মানুষ ছিলেন। কোন দিন কারো সাথে খারাপ ব্যবহার করেননি। সব সময় হাসিমূখে কথা বলতেন। ছাত্র-ছাত্রীদের সব সময় নিজের সন্তানের মত দেখতেন ও ভালবাসা দিতেন।
সালেহা রহিম দাখিল মাদরাসার সহকারি শিক্ষক নিজাম উদ্দিন জানান, নিহত সামাদ ভাই মাদরাসার জরুরী কাজের জন্য উপজেলা ইউএনও অফিসে যাওয়ার পথে এ ঘটনা ঘটে। তিনি অত্যান্ত দক্ষ একজন শিক্ষক ছিলেন, তার মৃত্যুতে মাদরাসা একজন অভিভাকক হারালেন। এ ঘটনায় আমরা হতবাক ও শোকাহত পরিবারকে সমবেদনা জানাচ্ছি।
ব্যাক্তি জীবনে তিনি স্ত্রী এক সন্তানসহ অসংখ্য গুনগাহী রেখে গেছেন। তার মৃত্যুতে পাবনা সদর উপজেলার সর্বশ্রেণির মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।
নিহতের পিতা আব্দুল হামিদ জানান, আমরা থানায় কোন মামলা করব না। তবে এমন ঘটনা যেন আর কারো ব্যাপারে না ঘটে।
ভাড়াঁরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সাঈদ খান ঘটনার সত্যতা নিশ্চত করে জানান, পারিবারিকভাবে কোন মামলা তারা করবে না। তবে ট্রাক আট করা হয়েছে। থানায় একটি মিমাংশার মাধ্যমে বিষয়টি সমাধান করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *