পাবনায় ইউপি সদস্যসের কু-প্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় গ্রাম থেকে তাড়িয়ে দেওয়া হুমকি

পাবনার আটঘরিয়ায় কু-প্রস্তাবে রাজী না হওয়া সবিতা রানীকে গ্রাম থেকে তাড়িয়ে দেওয়া হুমকি দিলেন বর্তমান ইউপি সদস্য আব্দুল করিমগং। এঘটনায় এলাকায় চরম আলোচনার ঝড় উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে মাজপাড়া ইউনিয়নের নাদুড়িয়া গ্রামে। এঘটনায় সবিতা রানী বাদী হয়ে আটঘরিয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

অভিযোগে জানা যায়, নয়ন দাসের স্ত্রী সবিতা রানী নাদুড়িয়া গ্রামে তার বাবার বাড়ীতে বসবাস করতেন। একই এলাকার ইউপি সদস্য আব্দুল করিমগং সবিতা রানীকে দেখে রাস্তা-ঘাটে বিভিন্ন সময়ে কু-পুস্তাব দিয়ে আসছেন। কিন্ত সবিতা রানী কু-প্রস্তাবে রাজি না হলে সম্প্রতি ওই ইউপি সদস্য লোকজন নিয়ে তার বাড়ীতে প্রবেশ করে অশালিন মুলক কথাবার্তা বলেন এবং তাকে গ্রাম ছাড়ার হুমকি দেন।

গত ২ এপ্রিল সবিতা রানীর স্বামী নয়ন দাস বাড়ীতে আসলে ওই দিনরাতে করিম মেম্বার লোকজন নিয়ে বাড়ীতে এসে অকথ্য ভাষায় গালা গালাজ করতে থাকে। সবিতা রানী ও তার স্বামী নয়নকে বিভিন্ন ভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছেন করিম মেম্বার।

সবিতা রানী আরও জানান, করিম মেম্বারগং এই গ্রাম থেকে আমাকে প্রতিনিয়তই তাড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিচ্ছে। গ্রাম ছেড়ে চলে না গেলে আমাকে ও আমার মেয়েকে এসিড মেড়ে হত্যার হুমকি দিচ্ছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *